বাংলাতে রান্না শেখার কয়েকটি জনপ্রিয় অ্যাপ

মজাদার ও সুস্বাদু রান্না খেতে কে না পছন্দ করে। আমরা সকলেই যে কোন রান্না মজাদার হলে পেট ভরে খেতে পারি। তবে অনেক মানুষ রয়েছে যারা রান্না করতে জানে না কিন্তু রান্না শিখতে চায়। কিন্তু রান্না শেখার উপায় খুঁজে পায় না কিংবা যেই রেসিপি রান্না করতে চায় সে রান্না করার নিয়ম খুঁজে পায়না।

এখন অনেকেই রান্না শেখার অ্যাপ অথবা ভিডিও খুঁজে থাকেন ইন্টারনেটে। অনেক আগে বাড়িতে আপ্যায়ন বা কোন মেহমানদারীর আপ্যায়ন করতে বিভিন্ন ধরনের রেসিপি জানার জন্য আপনাকে পাশের বাড়ির ভাবির অথবা কারো সাহায্য নেয়া দরকার হতো।

কিন্তু বর্তমানে ইন্টারনেটের যুগে আপনি সবকিছু হাতের মুঠোয় পাচ্ছেন। ঠিক তেমনি রান্না শেখার অ্যাপ অথবা ভিডিওগুলো আপনাকে বিভিন্ন ধরনের রেসিপি গুলো শেখাতে সাহায্য করে। এ ধরনের রেসিপি গুলো আপনি বাড়িতে খুব সহজেই তৈরি করে পরিবেশন করতে পারেন। আর এজন্য আপনাকে কোন ভালো রেস্টুরেন্টের সেপ হতে হবে না।

আবার আপনি যদি দেশের বাইরে থাকেন তাহলে ওই দেশের কালচার এর সাথে মিলিয়ে নিতে আপনাকে অনেক বেগ পেতে হচ্ছে পারে। প্রথম অবস্থায় সেখানে সেখানকার খাবার আপনার পছন্দ নাও হতে পারে। আমার এক ধরনের খাবার বারবার খেতে খেতে অসহ্য হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

তাই আজকের পোষ্ট থেকে যে সকল ওয়েবসাইট অ্যাপস এবং ভিডিওর লিংক আমি আপনাদেরকে দেবো সেখান থেকে পছন্দমতো যেকোনো একটি আপনি ফলো করতে পারেন। এখানে দেখানো রেসিপি গুলো নিজের মতো করে বাসায় চেষ্টা করে বানিয়ে ফেলতে পারেন।

তাছাড়া অনেকেই চান যে বাহির থেকে খাবার খাওয়ার চেয়ে নিজেরাই ঘরে তৈরি করতে পারলে ওই খাবারটা আরো বেশী মজাদার এবং পুষ্টিকর হয়ে থাকে। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের শারীরিক সুরক্ষা বৃদ্ধির জন্য পুষ্টিকর খাবারের বিকল্প নাই।

মূলত বাংলা ভাষায় এবং বাঙালি খাবার পরিবেশনের জন্য এমন কয়েকটি ওয়েবসাইট, অ্যাপ এবং ভিডিও রয়েছে যারা বাংলা খাবারের রেসিপি বানিয়ে দেখান। তাহলে চলুন মোবাইল এর মাধ্যমে যেসকল অ্যাপস আপনাকে রান্নার রেসিপি শেখাবে সেগুলো নিয়ে আলোচনা করা যাক।

বাংলাতে রান্না শেখার কয়েকটি জনপ্রিয় অ্যাপ

আমি গুগল প্লে স্টোর থেকে কতগুলো অ্যাপস আপনাকে রিকমেন্ড করব যেগুলোর মাধ্যমে আপনি খুব সহজে বাংলাতে রান্নার রেসিপি পাবেন। সেগুলো খুব ভালো মানের এবং ভালো রিভিউ সহ নিয়মিত আপডেট এবং আপনার জন্য দরকার এই সকল রেসিপি নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে।

যেসকল অ্যাপগুলো নিচে দেওয়া হলো সেগুলো আপনি স্মার্টফোনের প্লে-স্টোর বা অ্যাপ স্টোরে সার্চ করে ডাউনলোড করতে পারবেন।

বাঙালি রান্না

বাঙালি রান্না অ্যাপসটিতে আপনি একই সাথে আপনার রেসিপিগুলো বিবরণ সহ ছবি পেয়ে যাবেন। তাছাড়া আপনার কি ধরনের রেসিপি পছন্দ সেগুলো আপনি অ্যাপসটিতে সংরক্ষণ করে রাখতে পারেন। বিভিন্ন ধরনের রান্নার টিপস আপনি বাঙালি রান্না অ্যাপস থেকে পাবেন যেগুলো আপনার বিভিন্ন সময়ে রান্নার জন্য অনেক সুবিধা দিবে।

তাছাড়া বিভিন্ন ধরনের রেসিপি তো রান্না করবেন কিন্তু তার সাথে আপনার স্বাস্থ্যের দিকেও তো খেয়াল রাখা জরুরী। বাঙালি রান্না অ্যাপসটি আপনাকে বিভিন্ন ধরনের স্বাস্থ্য টিপস দিবে যা আপনাকে রেসিপিগুলো রান্নার সাথে সাথে স্বাস্থ্যের দিকেও নজর রাখার বাড়তি টিপস আপনাকে অনেক উপকৃত করবে।

রেসিপি রান্নাঘর

গুগল প্লে স্টোরে রেসিপি রান্নাঘর অ্যাপসটি প্রায় এক হাজারের উপরে ভালো ভালো রিভিউ রয়েছে। আপনি মাধ্যমে মজার মজার বাংলাদেশি রান্নার রেসিপি পেয়ে যাবেন। এবং আপনি খেয়াল রান্নায় এক ধরনের নতুনত্ব নিয়ে আসবে এই রেসিপিগুলো আইডিয়া।

আপনি এখানে বিরিয়ানি, মাংস, মাছ, ডিম, সবজি, খিচুড়ি সহ আরো অনেক ধরনের আচার ও পিঠা সহ আর মজার মজার রেসিপি পেয়ে যাবেন। রেসিপি গুলো ধাপে ধাপে খুব সুন্দর করে সাজানো রয়েছে সেগুলোর মাধ্যমে খুব সহজেই প্রয়োজনীয় রেসিপি খুঁজে পেতে সহায়ক হবে আপনার জন্য।

বাংলার মজার মজার রান্না শিখুন

বাংলার মজার মজার রান্না শিখুন অ্যাপসটির মাধ্যমে বাংলাদেশ সহ সকল মুসলিম খাবারের রেসিপি দেয়া হয়েছে যা এক কথায় অসাধারণ। বাংলাতে বাংলার রান্নার রেসিপি দিক দিয়ে বাঙ্গালীদের তুলনা নেই যেখানে বাঙালি মজার মজার নতুন রান্নার পরিবেশন খেতে পছন্দ করে। অ্যাপসের মাধ্যমে ধাপে ধাপে আপনি আপনার কাঙ্খিত রেসিপি সহজেই খুঁজে পেয়ে যাবেন।

ইউটিউবে জনপ্রিয় রান্না শেখার চ্যানেল

অনেকক্ষন তো গুগলের প্লে স্টোরের অ্যাপস দেখলেন। এবার চলুন ইউটিউবে কিছুক্ষন ঠু মেরে আসা যাক। আসলে ব্যাপারটি কি তা হলো আপনি অ্যাপস থেকে অবশ্যই শিখতে পারবেন। কিন্তু যদি আপনাকে বিবরন দেয়া সহ পুরো প্রক্রিয়াটি লাইভ দেখানো হয় তাহলে কিন্ত আপনি আরো ভালো ভাবে শিখতে পারতেছেন। ইউটিউবে আপনি কোন অ্যাপস থেকে আরো ভালো ধারনা পাবেন যেটা আপনি অন্য কোথাও পাবেন না।

ইউটিউবে রান্না রেসিপি শিখার অনেকগুলো ভালো ভালো চ্যানেল রয়েছে। তারা আবার দীর্ঘ দিন ধরে এসব মজার মজার রান্নার রেসিপি শেয়ার করে যাচ্ছে। তেমন কিছু চ্যানেল বাছাই করে আজকে আপনাদের মাঝে উপস্থাপন করলাম। যেই চ্যানেলের ভিডিও ভালো লাগবে আপনি ঐ চ্যানেলটি ফলো করুন।

এবং একই সাথে তাদের এন্ট্রি ভিডিওটি দেয়া হয়েছে যাতে আপনি ঐ চ্যানেলে না গিয়েই কিছুটা ধারনা পেতে পারেন যে এটা আপনার জন্য উপযোগী কিনা। প্রত্যেকের চ্যানেল থেকে একটি রান্নার ভিডীও দিয়ে দওয়া হলো যেনো প্রতিটা চ্যানেল খুজে পেতে কোন প্রকার সমস্যা না হয়।

Cooking Studio by Umme

Umme প্রায় ৬ বছর ধরে তার এই চ্যানেলে নিয়মিত ভিডিও দিয়ে যাচ্ছে। তার এখানে আপনি সকল ধরনের রেসিপি পেয়ে যাবেন। যেখান থেকে আপনি অনেক কিছু শিখে সেগুলো বাড়িতে তৈরি করে পরিবেশন করতে পারবেন। তার ইউটিউব চ্যানেলে প্রায় ২.৫৩ মিলিয়ন সাবস্ক্রাইবার রয়েছে।

Aysha Siddika

Aysha Siddika প্রায় ৫ বছর ধরে তার এই চ্যানেলে রান্নার নিয়মিত ভিডিও দিয়ে যাচ্ছে। তার এখানেও আপনি সকল ধরনের রেসিপি পেয়ে যাবেন। যেগুলো খেতে খুব সুস্বাদু এবং এগুলো আপনি শিখে বাড়িতে রান্না করতে পারবেন। তার  ইউটিউব চ্যানেলে প্রায় ২.০৪ মিলিয়ন সাবস্ক্রাইবার রয়েছে।

Mukti’s Cooking World

Mukti প্রায় ৪ বছর ধরে তার এই চ্যানেলে নিয়মিত রান্না শেখার বিষয়ে ভিডিও দিয়ে যাচ্ছেন। তার এখানে রান্না করার মত আপনি প্রায় সকল ধরনের রেসিপি পেয়ে যাবেন। তার Youtube চ্যানেলে মোট সাবস্ক্রাইবারের সংখ্যা ১.৮৮ মিলিয়ন বর্তমানে।

নীলা মজুমদার রান্নাঘর

নীলা মজুমদার প্রায় ১ বছর ধরে তার এই চ্যানেলে নিয়মিত ভিডিও দিয়ে যাচ্ছে। তার এখানেও আপনি বিভিন্ন ধরনের রেসিপি পেয়ে যাবেন, যেগুলো খুব সহজে বাড়িতে বসে শিখে নিতে পারবেন। বর্তমানে তার ইউটিউব চ্যানেলের সাবস্ক্রাইবার সংখ্যা ৩ লক্ষ ২৮ হাজার।

Santanar Ranna Ghar

Santana প্রায় ২ বছর ধরে তার ইউটিউব চ্যানেলে নিয়মিত রান্না বিষয়ক ভিডিও দিয়ে যাচ্ছে। তার এখানেও আপনি সকল ধরনের রেসিপি পেয়ে যাবেন রান্না করার জন্য। বর্তমানে তার ইউটিউব চ্যানেলের সাবস্ক্রাইবার সংখ্যা ১ লক্ষ ৫৮ হাজার।

Spice Bangla

Spice Bangla প্রায় ৪ বছর ধরে নিয়মিত ভিডিও দিয়ে যাচ্ছে। তার এখানেও আপনি সকল ধরনের রেসিপি পেয়ে যাবেন। তার মোট সাবস্ক্রাইবারের সংখ্যা ২.২ মিলিয়ন।

রান্না শেখা কেন প্রয়োজন

ছেলে হোক কিংবা মেয়ে হোক প্রত্যেকের রান্না সম্পর্কে প্রায় কিছুটা ধারণা থাকতে হয়। যেন অন্তত কোন বিপদের সময় সে নিজে নিজে রান্না করে খেতে পারে।

আর তাছাড়া আমাদের দেশে ছেলেদের তুলনায় মেয়েদের রান্না শেখার বিষয় বেশি গুরুত্ব দেওয়া হয়ে থাকে। কেননা মেয়েরা বিয়ের পর শ্বশুর বাড়িতে গিয়ে সংসার বিভিন্ন কাজের পাশাপাশি রান্নার কাজ করে থাকে। রান্না সুস্বাদু হলে সকলেই সেখানে তার প্রশংসা করে।

কিন্তু মেয়েদের পাশাপাশি বর্তমানে ছেলেদেরও কিছু কিছু রান্না শেখা প্রয়োজন রয়েছে। কারণ বিভিন্ন কাজের ক্ষেত্রে হোক কিংবা চাকরির ক্ষেত্রে বিভিন্ন জায়গায় যেতে হয়। সেখানে রান্না করে দেওয়ার মত কোন মানুষ থাকে না, তাই নিজেকে রান্না করে খেতে হয়। আবার অনেকে বউ নিয়ে যায়, রান্নার কাজ করার জন্য।

আবার রান্না করতে না চাইলে অনেকে মিলে একটি রান্নার জন্য বুয়া রাখে। যে কিনা সকলকে প্রতিদিন রান্না করে দেয়।

কিন্তু একবার চিন্তা করুন আপনি রান্না সম্পর্কে জানেন এবং বিভিন্ন সময়ে আপনি বাড়িতে হোক কিংবা বিভিন্ন জায়গায় রান্না করে থাকেন। সেগুলো খেয়ে মানুষ আপনার অনেক প্রশংসা করে থাকে তাহলে কতটা ভালো বিষয়।

আমাদের দেশে ছেলেদের রান্নার বিষয়ে বেশি বেশি গুরুত্ব দেওয়া না হলেও বাইরের দেশে বড় বড় রেস্টুরেন্টে ছেলেরা রান্নার কাজ করে থাকে। যেকোনো সময় যে কোন বিপদ আসতে পারে, সে সময় যদি আপনার আশেপাশে কেউ না থাকে রান্না করার জন্য। তখন যদি আপনার রান্নার বিষয়ে নূন্যতম ধারণা থাকে তাহলে আপনি রান্না করে খেতে পারবেন।

অর্থাৎ এক কথায় বলতে গেলে রান্না শেখার প্রয়োজনীয়তা বলে শেষ করা যাবে না। আপনার যদি রান্না জানা থাকে তাহলে আপনি অন্যান্য সাধারণ মানুষের তুলনায় কিছুটা হলেও এগিয়ে থাকবেন।

Share your love
Salman Shemul☑️
Salman Shemul☑️
Articles: 20