ঢেঁকি ছাঁটা চাল কোথায় পাওয়া যায়

বর্তমানে ঢেঁকিছাঁটা চাল আপনি যেকোন মুদির দোকানে খুব সহজেই পেতে পারেন। তবে একটা সময় ছিল যখন অনেক আগে গ্রাম বাংলার মানুষ ঢেঁকিছাটা চাল খেয়ে অভ্যস্ত ছিল।

এখনকার উন্নত সমাজ সেই ধানের নাম দিয়েছে ব্রাউন রাইস। ধানের তুষ এর কিছু অংশ এই গানের পৃষ্ঠার হয়ে গেছে। কারণ এই চাল পালিশ করা হয় না বলে এই চাল একটু লালচে দেখায়।

এই চাল পালিশ করা হয় না বলে এর পুষ্টিগুণ অন্যান্য সাধারণ চালের তুলনায় অনেক গুণ বেশি।

পুষ্টিবিদদের মতে বাঁদামী রং এর চালে রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা সহ বিভিন্ন রকমের পুষ্টি গুনাগুন রয়েছে। তারা মনে করেন এ চালের মধ্যে সাধারন ফাইবারের পরিমাণ বেশি থাকে।

ফলে পেট দীর্ঘ সময় ভরা থাকে যার ফলে ঘন ঘন ক্ষুধা পায় না। মূল কথা হল এর ফলে দীর্ঘ সময় শক্তি সরবরাহ হয়। সাধারন ভাতের মত এই চালের ভাত খাওয়ার প্রবণতা কম হলেও এটাই সত্য যে সাধারণ আন্যান্য চালের তুলনায় এর পুষ্টি গুণাগুণ অনেক বেশি।

বিডিপপুলারে আপনাকে স্বাগতম!

আপনার লেখা বিডিপপুলারে পাবলিশ করবেন কিভাবে?