ইতিহাস পাঠ করা প্রয়োজন কেন

ইতিহাস পাঠ করা প্রয়োজন কেন

ইতিহাস পাঠ করার মাধ্যমে আমরা অতিত থেকে অনেক কিছু শেখা যায়। অতীতের মানব সমাজের কর্মকাণ্ড, চিন্তা-ভাবনা ও জীবনযাত্রার অগ্রগতি সম্পর্কে জ্ঞান লাভ করা যায়। ইতিহাস থেকে একটি সভ্যতার সামাজিক, রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক ও সাংস্কৃতিক বিবর্তনের কথা সম্পর্কে জানা যায়।

অতীতের অনেক কিছু বর্তমানের সাথে গভীর ভাবে জড়িয়ে আছে। আর ইতিহাসের আলোকে আমরা বর্তমানকে বিচার করতে পারি। ইতিহাস পাঠ জাতীয় চেতনা উদ্ভবের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ। 

ইতিহাস পাঠ করে আমরা আমাদের বাংলাদেশের অতীতের গৌরবান্বিত মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস জানতে পেরেছি। কিভাবে মুক্তিযুদ্ধারা ১৯৭১ সালে পাকিস্তানের হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াই করে আমাদেরকে একটি স্বাধীন বাংলাদেশ উপহার দিয়েছে। 

ইতিহাস সম্পর্কে জেনে আমরা ৫২ এর ভাষা আন্দোলন জানতে পেরেছি। আমাদের বাংলা ভাষা জন্য কিভাবে সালাম, বরকত, রফিকসহ আরো অনেকে লড়াই করেছে এবং জীবন দিয়েছে সে সকল বিষয়ে আমরা ইতিহাস জানার মাধ্যমে জানতে পেরেছি। ইতিহাস চর্চার মাধ্যমে একটি জাতি অতীত সম্পর্কে জানা যায়।

একটি জাতির পরিচয়, ঐতিহ্য এসব কিছুর ইতিহাস জানার মাধ্যমে জাতীয়তাবোধ গড়ে ওঠে যা দেশ ও সমাজের কল্যাণে ব্যবহৃত হয়। সমাজের সর্বস্তরের মানুষের জন্য ইতিহাস জানার প্রয়োজনীয়তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

কোন জাতি তার ইতিহাস ও বর্তমানকে ভালো করে জানতে পারলে সে জাতি ভবিষ্যতের রাস্তাটাও ভালো তৈরি করতে পারে।

ইতিহাস জানার মাধ্যমে আমরা অতীতের কোন ভুল থেকে শিক্ষা নিতে পারবো। আমাদের যেন সেই ভুলের পুনরাবৃত্তি না হয় সেজন্য আমরা সঠিক প্রস্তুতি নিতে পারবো।

একটি জাতির ঐতিহ্য ও সাংস্কৃতিক মূল্যবোধ যথাযথভাবে সংরক্ষণ করে ইতিহাস। ইতিহাসের জ্ঞানকে কাজে লাগিয়ে, সেখান থেকে মনোবল নিয়ে আমদের সমাজ ও জাতির অগ্রগতির কাঙ্খিত লক্ষ্যে কাজ করতে অনুপ্রাণিত করে ইতিহাস।

বিডিপপুলারে আপনাকে স্বাগতম!

আপনার লেখা বিডিপপুলারে পাবলিশ করবেন কিভাবে?