চুইংগাম কি দিয়ে তৈরি করা হয়

চাবাইতে চাবাইতে একটি চুইংগাম খেয়ে ফেলা কোন ব্যাপার না কিন্তু কখনো কি ভেবে দেখেছেন যে চুইংগাম কি দিয়ে তৈরি করা হয়। আমাদের মনে কখনও এই প্রশ্নের উদয় হয় না যে আমরা যা খাই তা আসলে কি দিয়ে তৈরি হয় মূলত বাইরের খাবারগুলো।

আসলে নিজে থেকে প্রশ্ন করতে হয়। তবেই না প্রশ্নের উত্তর পাবেন, কোন বিষয় নিয়ে জানতে পারবেন।

চুইংগাম কি দিয়ে তৈরি করা হয় তাই নিয়ে আজকের পোস্ট।

চুইংগাম  তৈরিতে ব্যবহার করা হয় চিনি, প্রিজারভেটিভ, গাম বেস, পলিমার ফ্লেভার এবং বিভিন্ন রকমের রং দিয়ে।

বুঝতে পারতেছেন খুব মজার একটি খাবার কি দিয়ে তৈরি করা হয়।

উপরের উপাদানগুলো শুধুমাত্র চুইংগামের আকার এবং ভিতরের ফ্লেভার এর জন্য ব্যবহার করা হয়। কিন্তু চুইংগাম খাওয়ার পরে যখন আর রস থাকে না তখন কিন্তু চুইংগাম দিয়ে বাবল বানানো যায়।

চুইংগামের বাবল বানানোর জন্য  ব্যবহার করা হয় Elastomer, Resin, Emulsfier

এবং চুইংগাম খাওয়ার পরে অনেকে দেখবেন যে এদিকে আঠালো হিসেবে কোথাও ব্যবহার করতেছে। অনেকে অনেকের সাথে ফাইজলামি করতে ব্যবহার করে অথবা মজার কোনো ঘটনায় ব্যবহার করে থাকে। কিন্তু এই উপাদানগুলো তে থাকে পলিমার হাইড্রোফোবিক। যা চুইংগামকে আঠালো করে তোলে।

এবার চুইংগাম নিয়ে মজার কিছু ঘটনা

  • আজ থেকে প্রায় নয় হাজার বছর আগে এই চুইংগাম জাতীয় খাদ্যের প্রচলন ঘটে।
  • নয় হাজার বছর আগে উত্তর ইউরোপের বার্চ গাছের বাকল থেকে এক ধরনের চুইংগাম জাতীয় খাদ্য পাওয়া যেত। যখন ওই সময়ের মানুষগুলো এরকম ধরনের আঠালো জাতীয় রস পেলেন তখন এগুলোকে চিবিয়ে দেখলেন যে এগুলো আসলে এক ধরনের চুইংগাম জাতীয় পদার্থ।
  • এবং মনে করা হয় যে ১৮৪০ সালের দিকে প্রথম চুইংগাম বাজারজাত করা হয়।

বিডিপপুলারে আপনাকে স্বাগতম!

আপনার লেখা বিডিপপুলারে পাবলিশ করবেন কিভাবে?

Leave a Comment